ডাচ বাংলা ব্যাংক স্যালারি লোন DBBL

ডাচ বাংলা ব্যাংক লিমিটেড (ডিবিবিএল) থেকে খুব সহজে অল্প সুদে যখন ইচ্ছা তখন লোন পাওয়া যায়। লোনের জন্য ডাচ বাংলা ব্যাংক লোন অনেকের কাছে জনপ্রিয়। সাধারনত মাসিক বা বার্ষিক বেতন এর উপর স্যালারি লোন নির্ভর করে। এই লোন অনুমোদনে ১৫ দিন পযর্ন্ত সময় লাগে। যে স্যালারি লোন নিবে তার  মাসিক উপার্জনের উপর নির্ভর করে সে কত  লোন পেতে পারে বা পাবে।তবে সবচেয়ে ভালো সুবিধা হলো যত কম সময়ে আপনি আপনার লোন শোধ করবেন সুদের হার তত কম হবে। সুদের হার পরিবর্তনশীলতার উপর ভিত্তি করে মুনাফার হার থাকতে পারে ৯ শতাংশ।

ডাচ বাংলা ব্যাংক স্যালারি লোন নিতে যে সকল শর্ত পূরণ করতে হবে-

১. বয়স সীমা হতে হবে ১৮-৬০ বছর।

২. DBBL একটি একাউন্ট থাকতে হবে।

৩. ১০,০০০ টাকা নেওয়া যায় সর্বনিম্ন।

৪. ২০ লক্ষ  টাকা নেওয়া যায় সর্বোচ্চ।

৫. মেয়াদ ৫বছরের জন্য। 

৬. সুদের হার নতুন লোনের জন্যে ৯℅

৭. সুদের হার অন্য ব্যাংক থেকে টেক-ওভার ৮.৫℅

৮. প্রসেসিং ফি নতুন লোনের জন্যে ১℅

 ৯. অন্য ব্যাংক থেকে টেক-ওভার  কোন প্রসেসিং ফি নেই। 

১০.  এই লোনের জন্যে  নিরাপত্তা দেখাতে হয়।

আরও পড়ুনঃ তালিকাভুক্ত ব্যাংক কি ?

স্যালারি লোন এর জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র হলো-

  • এন আইডি অথবা পাসপোর্ট  কপি।
  • রঙিন ছবি ১ কপি। (পাসপোর্ট সাইজ)।
  • পেশা ও আয়ের প্রমাণ।
  • চাকরির জায়গার আইডি কার্ডের কপি,বেতন এর স্লিপ।
  • নূন্যতম ৬ মাসের ব্যাংক স্টেটমেন্ট।
  • ব্যক্তিগত গ্যারান্টি।
  • আপনি প্রফেশনাল হলে তার সার্টিফিকেট।
  • ই-টিন এর সার্টিফিকেট।
  • ব্যাংক চাইলে অন্য কাগজপত্র জমা দিতে হবে।

আরও পড়ুনঃ ডাচ বাংলা ব্যাংক হোম লোন বিস্তারিত । Dutch Bangla Bank Home Loan 2023

এ ছাড়া ও ডাচ বাংলা ব্যাংক লোন হল-

১. পার্সোনাল লোন

২. হোম লোন

৩. ব্যবসায় লোন

৪. স্যালারী লোন

৫. শিক্ষা লোন

৬. প্রবাসী লোন

৭. কার লোন

1 thought on “ডাচ বাংলা ব্যাংক স্যালারি লোন DBBL”

Leave a Comment